1. [email protected] : Mohiuddin Lasker : Mohiuddin Lasker
  2. [email protected] : Prodip Kumar Sarkar : Prodip Kumar Sarkar
  • E-paper
  • English Version
  • শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:০৫ অপরাহ্ন

বড়লেখায় চা বাগানের বিরুদ্ধে খাসিয়া পুঞ্জির গাছ কেটে নেয়ার অভিযোগ

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ২৮ মার্চ, ২০২১
  • ৯৩ বার পঠিত

বড়লেখা প্রতিনিধি : বড়লেখার একটি চা বাগান কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে খাসিয়াদের পান বাগানের বড় বড় গাছ কেটে নেয়ার পায়তারা চালানোর অভিযোগ উঠেছে। চাপালিশ প্রজাতির কেটে ফেলা দুইটি বড় গাছ ইউএনও’র নির্দেশে রোববার দুপুরে স্থানীয় বনবিভাগ জব্দ করেছে। বাগান কর্তৃপক্ষ গাছ কাটার অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

জানা গেছে, উপজেলার দক্ষিণ শাহবাজপুর ইউপির আগার পানপুঞ্জির খাসিয়ারা পান চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করছে। বিভিন্ন প্রজাতির ছোটবড় গাছের মধ্যে পান গাছ চাষ করা হয়। গাছ কেটে ফেললে পান বাগানও ধ্বংস হয়ে যায়। সম্প্রতি ছোটলেখা চা বাগান কর্তৃপক্ষ পানগাছ নির্ভরশীল ব্যাপক গাছে লাল রঙের দাগ দিয়েছে।

আগার পুঞ্জির হেডম্যান (মন্ত্রী) সুখমন আমসে অভিযোগ করেন, বাগান কর্তৃপক্ষ বিনাঅনুমতিতে পান বাগানে প্রবেশ করে কেটে নেয়ার জন্য বড়বড় গাছে লাল দাগ দিয়েছে। ইতিমধ্যে দুইটি বড় চাপালিশ গাছ কেটে ফেলেছ, এতে অনেক ক্ষতি হয়েছে। বাকি গাছগুলো কেটে নেয়ার পায়তারা চালাচ্ছে। গাছ কেটে ফেললে পান বাগান ধ্বংস হয়ে যাবে। আমাদের না খেয়ে মরতে হবে। এ অবস্থায় পুঞ্জির লোকজন আতংকে রয়েছেন।

ছোটলেখা চা বাগানের ব্যবস্থাপক শাকিল আহমদ জানান, বাগানের লীজকৃত জায়গার পুরাতন ঝুঁকিপূর্ণ কয়েকটি গাছ চিহ্নিত করে লাল রঙের দাগ দিয়ে রেখেছেন। কাটার কোন সিদ্ধান্ত হয়নি। কে বা কারা দুইটি চাপালিশ গাছ কেটেছে তা বাগান কর্তৃপক্ষের জানা নেই।

স্থানীয় বনবিভাগের রেঞ্জ কর্মকর্তা শেখর রঞ্জন দাস জানান, ইউএনও মো. শামীম আল ইমরানের নির্দেশে রোববার দুপুরে তিনি ছোটলেখা চা বাগানের আগার পুঞ্জির পান বাগানে কেটে ফেলা দুইটি চাপালিশ গাছ জব্দ করে রেঞ্জ অফিসে নিয়ে এসেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..