1. [email protected] : Mohiuddin Lasker : Mohiuddin Lasker
  2. [email protected] : Prodip Kumar Sarkar : Prodip Kumar Sarkar
  • E-paper
  • English Version
  • সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:১২ অপরাহ্ন

শেয়ারবাজারে ব্যাংক-আর্থিক প্রতিষ্ঠানের ধাক্কা

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৯ জুলাই, ২০১৮
  • ২৮২ বার পঠিত

ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কল্যাণে রোববার পর্যন্ত টানা তিন কর্যদিবস দেশের শেয়ারবাজার ঊর্ধ্বমুখী থাকে। সেই ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কারণেই সোমবার দেশর প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্য সূচকের পতন হয়েছে।

এদিন ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া ব্যাংক প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ২১টিরই শেয়ার দাম কমেছে। বিপরীতে দাম বেড়েছে ৬টির। আর আর্থিক খাতের ১৭টির শেয়ার দাম কমেছে। বিপরীতে দাম বেড়েছে ৬টির।

ব্যাংক ও আর্থিক খাতের প্রতিষ্ঠানের দরপতনের এই প্রভাব অন্য খাতের ওপরেও পড়েছে। ফলে লেনদেনের শুরুতে সিংহভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার দাম বাড়লেও, লেনদেন শেষে দরপতনের তালিকায় স্থান হয়েছে বেশি সংখ্যক প্রতিষ্ঠানের।

দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইতে ১৪১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমার তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ১৬৪টি। আর ৩৬টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের দাম কমায় ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ২৪ পয়েন্ট কমে ৫ হাজার ৩৪১ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অপর দু’টি মূল্য সূচকের মধ্যে ডিএসই-৩০ আগের দিনের তুলনায় ১৮ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৯১০ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক ও বাছাই করা মূল্য সূচক কমলেও এদিন ডিএসই শরিয়াহ সূচক কিছুটা বেড়েছে। দিনের লেনদেন শেষে এই সূচকটি আগের দিনের তুলনায় ১ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ২৬৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। এর মাধ্যমে ডিএসই শরিয়াহ সূচক টানা চার কার্যদিবস বাড়লো।

এদিকে বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের দরপতনের মধ্যেও ডিএসইতে লেনদেনের পরিমাণ কিছুটা বেড়েছে। সোমবার বাজারটিতে লেনদেন হয়েছে ৯০১ কোটি ২৬ লাখ টাকা। আগের দিন লেনদেন হয় ৮৯২ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। সে হিসাবে লেনদেন বেড়েছে ৮ কোটি ৭৭ লাখ টাকা।

এদিন টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বিবিএস কেবলসের শেয়ার। কোম্পানিটির ৪২ কোটি ৪৮ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে থাকা বসুন্ধরা পেপারের ৪০ কোটি ৫৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৩১ কোটি ৭৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে লিগাসি ফুটওয়্যার।

লেনদেনে এরপর রয়েছে- সিঙ্গার বিডি, আরএসআরএম স্টিল, প্যাসেফিক ডেনিম, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন, ফরচুন সুজ, প্রাইম টেক্সটাইল এবং ড্রাগণ সোয়েটার।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক মূল্যসূচক সিএসসিএক্স ৩৪ পয়েন্ট কমে ৯ হাজার ৯৫৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে। বাজারটিতে লেনদেন হয়েছে ৪৪ কোটি ১২ লাখ টাকা। লেনদেন হওয়া ২৪৬টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১০২টির দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১২১টির। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ২৩টির।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..